আজ, শনিবার ১৭ই অগ্রহায়ণ, ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

২রা ডিসেম্বর, ২০২৩ খ্রিস্টাব্দ

শিরোনাম

হজযাত্রা শুরু, ফ্লাইট মিস করলেন ১৪০ জন

টুডেসংবাদ ডেস্ক :: গত বারের মতো এবারও হজ পালন নিয়ে শঙ্কায় পড়েছেন ১৪০ জন। হজযাত্রা শুরুর দিন রোববার বাংলাদেশ বিমানের একটি ফ্লাইটটিতে তাদের সৌদি আরবের জেদ্দা যাওয়ার কথা ছিল। কিন্তু ভিসা নিয়ে জটিলতার কারণে তারা যেতে পারেননি। ফলে তারা কখন ও কোন ফ্লাইটে সৌদি আরব যেতে পারবেন, তা নিয়ে অনিশ্চয়তা দেখা দিয়েছে।

 

সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে, রোববার দুপুর ২টা ২০ মিনিটে বাংলাদেশ বিমানের একটি ফ্লাইটে এসব যাত্রীর সৌদি আরবের জেদ্দা যাওয়ার কথা ছিল। কিন্তু সেটি যথাসময়ে উড়াল দিয়েছে তাদের ১৪০টি আসন ফাঁকা রেখেই।

 

রোববার থেকেই হজযাত্রীদের পরিবহণ শুরু করেছে বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্স। ভোরে ৪১৫ জন হজযাত্রী নিয়ে ছেড়ে যায় প্রথম হজ ফ্লাইট।

 

এরপর সকাল ৭টায়, সকাল সাড়ে ১০টায়, দুপুর ২টা ২০ মিনিটে আরও তিনটি ফ্লাইট ছেড়ে গেছে। রাত ১০টা ৫০ মিনিটে আরেকটি ফ্লাইট যাবে।

 

এদিকে গত বছরও এজেন্সিগুলোর প্রতারণা কারণে হজে যেতে পারেননি ৩০০ জনের মতো হজযাত্রী।

 

ফ্লাইট মিস করা হজযাত্রীরা জানিয়েছেন, এজেন্সির নির্দেশনা অনুযায়ী রোববার দুপুরে ফ্লাইট ধরতে শনিবারই তারা আশকোনার হজ ক্যাম্পে আসেন। তাদের যে ভিসা হয়নি, এ কথা শেষ সময়ে এসে তাদের জানায় এজেন্সি। পরে ২টা ২০ মিনিটের যে ফ্লাইটটিতে তাদের টিকিট ছিল, সেটি তাদের না নিয়েই ঢাকা ত্যাগ করে।

 

বিমানের পক্ষ থেকে হজ সমন্বয়ের দায়িত্বে থাকা ব্যবস্থাপক গোলাম সরওয়ার গণমাধ্যমকে বলেন, শুনেছি ওই হজযাত্রীদের ভিসা হয়নি। তারা আমাদের কাউন্টারে আসেননি। তাদের রেখেই আমাদের যেতে হয়েছে।

 

সূত্রে জানা গেছে, ‘জান্নাত ট্রাভেলস’ নামে একটি হজ এজেন্সির মাধ্যমে এই ১৪০ জনের হজে যাওয়ার কথা। শেষ সময়ে এজেন্সি তাদের জানায়, ‘টেকনিক্যাল সমস্যার কারণে’ সময় মতো তাদের ভিসা হয়নি। এ বিষয়ে জান্নাত ট্রাভেলসের কারও বক্তব্য জানা যায়নি।

 

তবে হজ ক্যাম্পের পরিচালক (যুগ্ম সচিব) সাইফুল ইসলাম জানান, তিনি জান্নাত ট্রাভেলসের প্রতিনিধির সঙ্গে কথা বলেছেন। সমস্যার সমাধান হচ্ছে।

 

তিনি আরও বলেন, সন্ধ্যা ৬টা নাগাদ ১৩৬ জনের ভিসা হয়েছে, বাকি চারজনেরও হয়ে যাবে। সোমবার নাগাদ তাদের অন্য ফ্লাইটে সৌদি আরব পাঠানোর চেষ্টা করা হবে।

 

সৌদি আরব যেতে আবার টিকিট কাটতে হবে কিনা-প্রশ্নের জবাবে বিমানের ব্যবস্থাপক গোলাম সরওয়ার বলেন, এটা বিমানের বিপণন বিভাগের লোকেরা ভালো বলতে পারবে।

 

তবে বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের দায়িত্বশীল একজন কর্মকর্তা জানান, ফ্লাইট মিস করা ১৪০ যাত্রীকে ‘ডেডিকেটেড হজ ফ্লাইটে’ একসঙ্গে পাঠানো সম্ভব হবে না। তবে বিমানের নিয়মিত ফ্লাইটে তারা যেতে পারবেন।

 

এদিকে হজযাত্রীদের ফ্লাইট মিসের বিষয়টি ধর্ম প্রতিমন্ত্রী ফরিদুল হক খানও জেনেছেন। তিনি সন্ধ্যায় শাহজালাল বিমানবন্দরে এক অনুষ্ঠানে বলেন, আমরা বিষয়টি খতিয়ে দেখছি। ভবিষ্যতে আর যেন এরকম না হয় সেজন্য ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

 

টুডেসংবাদডটকম/ডেস্ক/এ/

সর্বশেষ