রাষ্ট্রপতি নয়, ইসি নিয়োগ আইন জাতীয় সংসদে পাস করতে হবে : ব্যারিস্টার তাজ (সাক্ষাৎকার)

ffff

আইন প্রণয়ন ছাড়াই নির্বাচন কমিশন (ইসি) নিয়োগ দেয়ায় সংবিধান লংঘনের অভিযোগ উঠেছে সংবিধানের ১১৮() অনুচ্ছেদে লক্ষ্যে আইন প্রণয়নের কথা বলা হয়েছে কিন্তু স্বাধীনতার ৪৫ বছরেও ইসি নিয়োগে আইন তৈরি হয়নি সরকারগুলো নিজেদের পছন্দের লোকদের নিয়োগ দিয়েছে অতীতের মতো এবারও আইন ছাড়া নির্বাচন কমিশন পুনর্গঠনের সম্ভাবনা তৈরি হয়েছে এতে রাজনৈতিক বিতর্কের পাশাপাশি আইনি জটিলতা সৃষ্টির আশংকা রয়েছে তবে শাসক দলের মতে, সংবিধান অনুযায়ীই রাষ্ট্রপতি ইসি নিয়োগ দেবেন কাজেই কোনো ধরনের জটিলতা সৃষ্টি হবে না
এ বিষয়ে টুডে সংবাদ এর সঙ্গে এক সাক্ষাৎকারে ব্যারিস্টার এবিএম গোলাম মোস্তফা তাজ বিভিন্ন সাংবিধানিক আইনী বাধ্যবাধকতা বিয়য়ে কথা বলেছেন। সাক্ষাৎকার নিয়েছেন টুডে সংবাদ এর নির্বাহী সম্পাদক ইএম মানিক।
সংবিধানের ১১৮ (১) অনুচ্ছেদ : [প্রধান নির্বাচন কমিশনার এবং অনধিক চারজন নির্বাচন কমিশনারকে লইয়া] বাংলাদেশের একটি নির্বাচন কমিশন থাকিবে এবং উক্ত বিষয়ে প্রণীত কোন আইনের বিধানাবলী-সাপেক্ষে রাষ্ট্রপতি প্রধান নির্বাচন কমিশনারকে ও অন্যান্য নির্বাচন কমিশনারকে নিয়োগদান করিবেন।
টুডে সংবাদ : প্রণীত কোন আইনের বিধানাবলী-সাপেক্ষে রাষ্ট্রপতি প্রধান নির্বাচন কমিশনার ও চারজন কমিশনার নিয়োগদান করিবেন, সংবিধানের এই নির্দেশনার আলোকে কি কোন আইন প্রণয়ন করা হয়েছে?
ব্যারিস্টার তাজ : সংবিধানের ১১৮ (১) অনুচ্ছেদের আলোকে নির্দিষ্ট কোনো আইন নেই যে, কিভাবে রাষ্ট্রপতি নির্বাচন কমিশনারদের নিয়োগদান করবেন। তবে এ বিষয়ে সার্চ কমিটির মাধ্যমে সকল দলের গ্রহণযোগ্য কমিশনার নিয়োগের জন্য সাবেক প্রধানমন্ত্রী বিএনপি চেয়ারপার্সন বেগম খালেদা জিয়া ইতিমধ্যে ১৩ দফা ভিত্তিক একটি প্রস্তাব জনগণের কাছে পেশ করেছেন।
টুডে সংবাদ : সংবিধানের নির্দেশনা অনুযায়ী এই আইন কে প্রণয়ন করবেন, রাষ্ট্রপতি নাকি জাতীয় সংসদ?
ব্যারিস্টার তাজ : সংবিধান হচ্ছে সর্বোচ্চ আইন। সংবিধানের দিক নির্দেশনা অনুযায়ী আইন প্রনয়ণকারী সংস্থা আইন মন্ত্রণালয়ের মাধ্যমে সংসদে পেশ করলে, সংসদ সদস্যদের সমর্থনে তা আইনে পরিণত হবে, অর্থাৎ জাতীয় সংসদই আইন তৈরি করবে।
টুডে সংবাদ : সংবিধানের আলোকে প্রণয়নকৃত এ আইন কি জাতীয় সংসদে পাসকৃত হতে হবে, নাকি মন্ত্রী পরিষদে অনুমোদিত হলেই হবে?
ব্যারিস্টার তাজ : সব ধরনের আইনই জাতীয় সংসদে পাস হতে হবে। জাতীয় সংসদে পাস হলেই তা আইন হিসেবে গণ্য হবে।
টুডে সংবাদ : সংবিধানের ১১৮ (১) অনুচ্ছেদ অনুযায়ী আইন প্রণয়ন করার পূর্বে রাষ্ট্রপতি সার্চ কমিটি গঠন করে, তাদের পছন্দ অনুসারে প্রধান নির্বাচন কমিশনার ও অন্য চারজন কমিশনারদের কি নিয়োগ দিতে পারেন?
ব্যারিস্টার তাজ : রাষ্ট্রে জরুরী অবস্থা জারি হলেই কেবল রাষ্ট্রপতি প্রেসিডেন্সি অর্ডার দিতে পারেন, এবং পরবর্তীতে তা আইনে পরিণত হতে পারে। দেশে যেহেতু জরুরী অবস্থা নেই, সুতরাং সংবিধানের আলোকে কাজ করা জরুরী।
তবে সবার গ্রহণযোগ্য আস্থার জায়গা হতে কমিশন গঠন হোক এটা সবাই চায়। পৃথিবীর বিভিন্ন গণতান্ত্রিক দেশে দেশে সরকার ক্ষমতায় থেকে নির্বাচন হচ্ছে। তবে এ ক্ষেত্রে শক্তিশালী নির্বাচন কমিশন প্রয়োজন।