রাজশাহীতে কিশোরীকে গণধর্ষণ, গ্রেফতার ৪

17

রাজশাহী : রাজশাহী মহানগরীর একটি আবাসিক হোটেলে কিশোরী গণধর্ষণের শিকার হয়েছেন। মহানগরীর মালোপাড়া পুলিশ ফাঁড়ির সামনে অবস্থিত হোটেলে এ ধর্ষণের ঘটনা ঘটে। ধর্ষণের শিকার ওই কিশোরীকে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ (রামেক) হাসপাতালের ওয়ান স্টপ ক্রাইসিন্স সেন্টারে (ওসিসি) ভর্তি করা হয়েছে।

সোমবার রাতে পুলিশ এ তথ্য নিশ্চিত করেছে। এ ঘটনায় জড়িত থাকায় পুলিশ চারজনকে গ্রেফতার করেছে।

ওসিসিতে ভর্তির আগে ওই কিশোরী জরুরি বিভাগের চিকিৎসকদের জানান, তার বাড়ি বগুড়ার সোনাতলা থানা এলাকায়। রবিবার সন্ধ্যায় তিনি প্রেমের টানে বগুড়া থেকে রাজশাহী আসেন। এরপর কথিত প্রেমিকের সঙ্গে তিনি ওই হোটেলে উঠেন। রাতের বেলা প্রেমিককে তাড়িয়ে দিয়ে হোটেলের কর্মচারীরা তাকে ভয়ভীতি দেখিয়ে ধর্ষণ করে। পরে কৌশলে তিনি সেখান থেকে পালিয়ে বোয়ালিয়া থানায় যান। সেখান থেকে ওই কিশোরীকে রামেক হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

মামলার তদন্ত কর্মকর্তা বোয়ালিয়া মডেল থানার উপ-পরিদর্শক সোলাইমান আলী বিষয়টি নিশ্চিত করেন।

রামেক হাসপাতালের জরুরি বিভাগের তথ্য অনুযায়ী, ওই কিশোরী সোমবার রাত সাড়ে ৯টায় রামেক হাসপাতালে ভর্তি হওয়ার জন্য আসে। ওই সময় তার অবস্থা আশঙ্কাজনক ছিল। পরে তাকে হাসপাতালের ওসিসিতে ভর্তি করা হয়।

মামলার তদন্ত কর্মকর্তা আরও জানান, এ ঘটনায় থানায় মামলা হয়েছে। পুলিশ চারজনকে গ্রেফতার করেছে। অন্যদের গ্রেফতারে চেষ্টা চলছে। তবে ঘটনার পর থেকে ওই হোটেলটি বন্ধ পাওয়া যায়। এর মালিককেও পাওয়া যায়নি।

(টুডে সংবাদ/মেহেদী)

প্রতি মুহুর্তের খবর পেতে www.todaysangbad.com