সুখ কিসে ?

1-131
মুহাম্মদ জাহাঙ্গীর আলম বাবু :
ছাগল নাইয়ার সলিমুদ্দিনের বউ সকিনা সলিমকে ছাড়িয়া সালামের সাথে পালাইয়াছে.সলিমের মেয়ে সালমার বয়স নয় বছর আর ছোট ছেলে সাজুর বয়স ছয়।আইজ থেইকাবছর ১১ পূর্বে সিঙ্গাপুর আসিয়াছিল ধার দেনা করিয়া আর সকিনার সোনার গহনাবেচিয়া।এগারো বছরে মাত্র দুইবার দেশে যাবার সুযোগ পেয়েছিল সলিম।বছর ঘুরিতেইপারমিট শেষ হইয়া যায়।নতুন পারমিট করিতে এবং ধার দেনা শোধ করিতে সলিম ঠিকমত দেশে যাইতে পারে নাই।ছুটিতে দেশে যাবার পর পাড়া প্রতিবেশীরা নানান কথাবলেছিল সকিনার নামে .সলিম তাহতে কর্ণ পাত করে নাই।সলিমের বৌয়ের প্রতি ছিলঅগাধ বিশ্বাস।এইবার ছুটি থেকে আসবার পর সে কান কথা সত্যি বলিয়া প্রমান হইলো.এই জন্য সলিম নিজেকে দোষারোপ করে।আর টাইগার বিয়ার খাইয়া অবল তাবোলবকে।
শনিবার রাতে রয়েল রোডের ২৪ ঘন্টা খোলা রেস্টুরেন্ট থেকে লক্ষ্য করলাম মাঠেরকোনে  কিছু লোকের জটলা রাত প্রায় একটা .রবিবার ছুটি থাকতে শনি রাত জাগারঅভ্যাস .কৌতুহলী মন নিয়া ভীড় ঠেলিয়া আগাইয়া গেলাম কিছুক্ষণ পর অনেকেপ্রবাসী বন্ধু নাক সিট কাইয়া চলিয়া গেল .যদিও অনেক কে  বিভিন্ন নাইট ক্লাবেমাতাল হইতে দেখিয়াছি।দোকান থেইকা লেবুর রস গরম পানিতে মিশাইয়া খাওয়ানোরকিছুক্ষণ পর সলিম একটু শান্ত হইলো .আবেগ আপ্লুত হইয়া কেন জানি আমাকেইমনের কিছু কথা বলিল।যাহার কিছু অংশ শুরুতেই বলিয়াছি।কথায় বোঝা গেলো আজওসলিম সকিনা কে যথেষ্ট ভালো বাসে।কথার মাঝে মাঝে বলছিল কষ্টের সময় গেলি নাআইজ কেন গেলি।আইজ বাড়িতে দালান হইছে।টিভি ফ্রিজ সব হইছে .কেনো গেলি.আবার নিজে থেকে বলছে আমার সকুর কোন দোষ নাই .সব দোষ আমার .কাজেরচাপে ঠিক মত ফোন করি নাই .টাকা খরচ হইবো ভাইবা ফোন করি নাই।দোষ তোআমার।দেশে আত্বীয়  স্বজনরা কইছে সকিনা সারা দিনরাত এমন কি নিশি রাইত ও টেলিফোনে কত কয়। কেউ কিছু জিগাইলে কইত আমার লগে কত কয়।  আরে ভাইআমিতো মাসে একটা ফোন কার্ড ও ব্যবহার করি নাই .এইবারের আগের বার সকিনারনামে একাউন্ট করলাম লক্ষ পাচেক টাকা আছিলো আর কয় ভরি সোনা .তা নিয়া চইলাগেলো আমি আইছি মাত্র এক মাস একটু বোঝলাম না .দুই মাস দেশে থাকলাম .গেলোতো গেলো আমার  লজিং মাস্টার ,দূর সম্পর্কের ভাইগ্নার লগে গেলো .দুই বছর আগেআমার বাচ্চাগো পড়া লেখা করাইতে চর এলাকার ওই ভাইগ্না সালাম রে আমার বাড়িতেজায়গা দিলাম।আমার খাইয়া আমার বউ লইয়া গেলো ,গেলি তো গেলি সুখের দিনেগেলি সকিনা ।
পিছন থেকে কে যেন বলল
নারীর সুখ অর্থে নয় ভালবাসায়,আদরে ,শারীরিকচাহিদায়।নারী অনেক ধৈর্য ধরে .কিন্তু কোন এক সময়ধৈর্যের বাঁধ ভেঙ্গে গেলে আর হাতের কাছে কোন একদুর্বল মুহুর্তে পেয়ে যায় সুখের ছোয়া ভুলে যায় স্বামীরভালবাসা ,গর্ভের সন্তান ,সাজানো সংসার।
আর সলিম মিয়া আপনি জেনে শুনে বোঝের মানুষ হইয়া কেমন কইরা জওয়ান বৌএরকাছে জওয়ান মাস্টার রাখলেন।ভুলতো আপনার .
ভুল যার ই হোক কি হবে সলিমের সন্তানদের .কি হবে ওদের ভবিষ্যত .প্রায় সকাল হয়েএলো .এখন সলিম একেবারে শান্ত।থাকে বুকিবাতুক এক ডর মেটরিতে .যাবার বেলায়বলে গেলো নাহ দেশে গিয়ে দিন মুজুরী করবো . বিদেশ আর না ,এই প্রবাস কেড়েনিয়েছে আমার যৌবন .কেড়ে নিয়েছে সকিনা আর হারাতে চাই না সন্তানের ভালবাসা।
 সিঙ্গাপুর