এই ছোট্ট কৌশলেই ভরপেট ভাত খেলেও জমবে না মেদ

53

স্বাস্থ্য বিষয়ক ডেস্ক : ওজন কমাতে সবার আগে কোপ পড়ে খাবারের থালায়৷ আরও বেশি কোপ পড়ে ভাতের উপর৷ চলতি ধারণা, ভাত খেলেই মেদ জমে৷ তা অবশ্য অমূলক নয়৷ চালে থাকা স্টার্চের কারণেই রোগা হতে ভাতকে তাই সকলে এড়িয়েই চলেন৷

কিন্তু খাঁটি বাঙালির ভাত ছাড়া চলে না৷ এদিকে ওজন বেড়ে যাওয়াও মহা সমস্যা৷ এ দু’য়ের গেরোয় পড়ে বাঙালি জেরবার৷ কিন্তু একটা ছোট্ট কৌশলই এ সমস্যা সমাধান করতে পারে৷ না, এর জন্য কোনও ব্যায়াম করতে হবে না৷ সকাল বিকাল জিমে গিয়ে হত্যে দেওয়ারও প্রয়োজন নেই৷ বদল চাই শুধু রান্নার কৌশলে৷

কী করবেন?  গরম ফুটন্ত জলে চাল দেওয়ার আগে একটু নারিকেল তেল যোগ করুন৷ মোটামুটি যে পরিমাণ চাল নেওয়া হচ্ছে তার ৩ শতাংশ পরিমাণ তেল হলেই চলবে৷ অর্থাৎ হাফ কাপ চালের ভাত করতে চাইলে এক চা-চামচ তেল যোগ করুন৷ এবার ভাত হয়ে যাওয়ার পর তা রেফ্রিজারেটরে ঠাণ্ডা করুন প্রায় ঘন্টা ১২৷ পরে খাওয়ার সময় যেটুকু খাবেন সেটুকুই শুধু গরম করে নিন৷

কেন এতে মোটা হওয়ার ঝুঁকি কম? আসলে চালের মধ্যে থাকা স্টার্চ ভেঙে গ্লুকোজ ও গ্লাইকোজেনে পরিণত হয়৷ এই গ্লাইকোজেনের কারণেই মেদ জমে৷ রান্নার আগে নারিকেল তেল যোগ করার ফলে তেলের লিপিড এর মধ্যে ঢুকে পড়ে৷ ফলে স্টার্চের গঠনতন্ত্রে জরুরি পরিবর্তন ঘটে৷

এর জেরেই এইভাবে রান্না করা ভাত খাওয়ায় মেদ জমার সম্ভাবনাও অনেক কমে যায়৷ ব্যায়াম-জিম ছাড়াই ভরপেট ভাত খেয়ে যদি রোগা হওয়া যায়, তবে মন্দ কী!

(টুডে সংবাদ/মেহেদী)

প্রতি মুহুর্তের খবর পেতে www.todaysangbad.com