মেসি-নেইমার নাকি প্রেমিক-প্রেমিকা!

স্পোর্টস ডেস্ক : স্প্যানিশ জায়ান্ট ক্লাব বার্সলোনায় এবার মেসি-নেইমার জুটিকে প্রেমিক যুগলের সঙ্গে তুলনা টানলেন টেলিভিশনের ধারাভাষ্যকাররা।

এই দুই তারকা স্ট্রাইকারের মধ্যে বোঝাপড়া এতটাই চমৎকার যে, একজন প্রেমিক-প্রেমিকার সঙ্গে তার তুলনা চলে এলো।

প্রেমিক-প্রেমিকারা যেমন একে-অপরের মনে ভাষা, চোখের ভাষা, ইশারা চটজলদি বুঝতে পারে, ঠিক একই রকমভাবে নাকি বল দেওয়া-নেওয়ার ক্ষেত্রে মেসি-নেইমার একে অপররের চোখের ভাষা কিংবা ইশারু বুঝতে পারেন।

শনিবার লা-লিগার ম্যাচে একটি গোল তারই প্রমাণ দিয়ে গেল। চোট সারিয়ে ম্যাচের ৫৫ মিনিটে মাঠে নেমেই চমক লিওনেল মেসির। নেইমারের দারুণ এক থ্রু ধরে গোল করলেন। এই গোলে আরও একটি রেকর্ড গড়েন মেসি, কিন্তু রেকর্ডের জন্য নয়, এই গোলটি আলোচনায় চলে এসেছে নেইমারের সঙ্গে তার দারুণ বোঝাপড়ার জন্য।

ম্যাচের ৫৭ মিনিটে দেপোর্তিভো বক্সের কাছে নেইমার যখন বল পেলেন, মেসি তখন বক্সের ঠিক সামনে। দেপোর্তিভোর ডিফেন্ডাররা বলের দিকে তাকিয়ে। কিন্তু নেইমারের চোখ খুঁজে নিল মেসিকে। নেইমার বল ঠেললেন বাঁ পোস্টের দিকে। আশ্চর্যের বিষয় হলো, নেইমারের পায়ে বল যাওয়া মাত্র মেসি দৌড়ও শুরু করলেন সেই ডান পোস্টের দিকে। যেন নেইমার জানতেন মেসি ওখানেই যাবেন। কিংবা যেন মেসি জানতেন, নেইমার ওইখানেই বল ঠেলবেন। এমনভাবে মিলে গেল সব। মেসিও গোলটাও করলেন দারুণ।

ধারাভাষ্যকারদের গলায় তখন মেসি-নেইমার স্তুতি। কী বোঝাপড়া দু’জনের। মেসিকে এখন হয়তো আন্তনেলা রোকুজ্জুর চেয়ে নেইমারই বেশি বোঝেন! মজার ব্যাপার! (টুডেসংবাদ/এআরএ)